ত্রাণের দাবিতে সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ, ইউএনওর গাড়ি ভাঙচুর

করোনা পরিস্থিতিতে ত্রাণের দাবিতে কুড়িগ্রাম সদরের কাঁঠালবাড়ী ইউনিয়নের চৌরাস্তায় সড়ক অবরোধ করে বিক্ষোভ করেছেন এলাকাবাসী।

শনিবার (৯ মে) কুড়িগ্রাম-রংপুর মহাসড়কে গাছের গুড়ি ফেলে অবরোধে করে বিক্ষোভ করেন ত্রাণ না পাওয়া শত শত মানুষ। 

এসময় বিক্ষোভকারীদের খাদ্য সহায়তার বিষয়ে আশ্বস্ত করতে সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সেখানকার ইউপি চেয়ারম্যানকে নিয়ে ঘটনাস্থলে গেলে বিক্ষুব্ধরা ইউএনও গাড়ি ভাঙচুর করে। মুহূর্তেই উত্তপ্ত হয়ে উঠে চারপাশের পরিস্থিতি। 

ঘটনাস্থলে বিক্ষোভকারীদের সঙ্গে কথা বলে জানা গেছে, কাঁঠালবাড়ী ইউনিয়ন পরিষদ থেকে বারবার পরিচয়পত্রের ফটোকপি নেয়া হলেও এখনও কাউকে ত্রাণ সহায়তা দেয়া হয়নি। দেশজুড়ে চলমান করোনা মহামারিতে অচলাবস্থায় দিন দিন পরিবার-পরিজন নিয়ে খাদ্য সংকটের মুখে পড়তে হচ্ছে সেখানকার কয়েক হাজার মানুষকে। সরকারের বরাদ্দকৃত ত্রাণের কোনও সামগ্রীই এলাকাবাসীকে দেয়া হয়নি। এ পরিস্থিতিতে তারা বাধ্য হয়েই রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ করছেন বলে জানান। 

এ ব্যাপারে কাঁঠালবাড়ী ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান রেদওয়ানুল হক দুলাল সাংবাদিকদের বলেন, ‘সরকারের দেয়া বরাদ্দের খাদ্য সহায়তা ইউনিয়নের প্রতিটি ওয়ার্ডে বিতরণ করা হয়েছে। সবাই ত্রাণ সহায়তা পেয়েছে। এরপরও নারী সদস্য মর্জিনা বেগমের মদদে এলাকার লোকজন রাস্তায় নেমে অবরোধ করছে।’

এ বিষয়ে উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ময়নুল ইসলাম জানিয়েছেন, বিক্ষোভ-অবরোধের বিষয়টি জানার পর স্থানীয়দের সঙ্গে কথা বলতে গেলে তারা চড়াও হয়ে গাড়ি ভাঙচুর করে, হামলা চালায়। গাড়ির গ্লাস ভেঙে গেছে।